আজ

  • শনিবার
  • ২৪শে ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
  • ১১ই ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

অদম্য জাহিদের পাশে হুইলচেয়ার নিয়ে মিজানুর রহমান মজুমদার

  • নিজস্ব প্রতিনিধি
  • শারীরিক প্রতিবন্ধকতাকে জয় করে এসএসসি পরীক্ষায় অংশ নেয়া ফেনীর পরশুরামের জাহিদুল ইসলামের পাশে দাঁড়িয়েছেন বিশিষ্ট সমাজসেবক ও পোর্টল্যান্ড গ্রুপের চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান মজুমদার। শারীরিক প্রতিবন্ধী জাহিদুল ইসলামকে চলাচলের জন্য একটি অত্যাধুনিক মডেলের হুইল চেয়ার উপহার দিয়েছেন।

    বুধবার (২৪ মে) বিকেলে উপজেলা আওয়ামীলীগ কার্যালয়ে অধম্য মেধাবী জাহিদুল ইসলামকে তিনি হুইলচেয়ারটি উপহার দেন। এতে প্রধান অতিথি ছিলেন ফেনী জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান খায়রুল বশর মজুমদার তপন।

    এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন উপজেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এম সফিকুল হোসেন মহিম, কাউন্সিলর এনামুল হক এনাম, আব্দুল মান্নান, আব্দুল মান্নান লিটন প্রমুখ।

    জাহিদ হুইলচেয়ারে চড়ে এবারের এসএসসি-২০২৩ সালের পরীক্ষা দিচ্ছে। সে হুইল চেয়ারে বসেই খাওয়া দাওয়া, স্কুলে যাতায়াত, পড়ালেখাসহ যাবতীয় কাজ করেন। এনিয়ে সংবাদ প্রকাশ হওয়ায় বিষয়টি নজরে আসে পোর্টল্যান্ড গ্রুপের চেয়ারম্যান মিজানুর রহমানের। এরপর তিনি জাহিদকে একটি চেয়ার উপহার দেয়ার উদ্যোগ নেন।

    জাহিদ অত্যাধুনিক হুইল চেয়ার উপহার পেয়ে আনন্দে আর্তহারা হয়ে উঠেন। সে মিজানুর রহমানের প্রতি ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জানান। সে উপজেলার গুথুমা খাঁন বাহাদুর আবদুল আজিজ উচ্চ বিদ্যালয় থেকে ২০২৩ সালের এসএসসি পরীক্ষায় মানবিক বিভাগ থেকে পরীক্ষায় অংশ নিয়েছেন। পরশুরাম কবি সামছুন নাহার মাহমুদ বালিকা বিদ্যালয়ের পরীক্ষা কেন্দ্রের দ্বিতীয় তলার একটি কক্ষে বসে পরীক্ষায় অংশ নেয়। জাহিদ পৌর এলাকার বাঁশপদুয়া গ্রামের মাদ্রাসা শিক্ষক আবদুর রউপের ছেলে। সে চার ভাই বোনের মধ্যে মেজো।

    উপজেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এম. সফিকুল হোসেন মহিম বলেন, শারীরিক প্রতিবন্ধকতা আটকাতে পারেনি উপজেলার পৌর এলাকার বাঁশ পদুয়া গ্রামের জাহিদকে। সব বাঁধা ও প্রতিকূলতাকে জয় করে স্বাবলম্বী হওয়ার স্বপ্ন নিয়ে এ বছর এসএসসি পরীক্ষা অংশ নেয়। প্রবল ইচ্ছা শক্তি আর আত্মবিশ্বাসকে পুঁজি করে প্রতিবন্ধি জীবনকে তিনি স্বাভাবিকভাবেই মেনে নিয়ে লেখাপড়া করে যাচ্ছে।

    জাহিদের পরিবার জানায়, জন্মের পর থেকে পায়ের শক্তি কমে যায়। পা চিকন হয়ে যায় ও হাঁটাচলার শক্তি হারিয়ে ফেলে। বড় হবার সাথে সাথে তার পা দুটি একেবারেই অকেজো হয়ে পড়ে। এখন তার জীবনের সবকিছু হুইল চেয়ারেই সীমাবদ্ধ।

    জাহিদুল ইসলাম বলেন, আমি আশা করি আমার ফলাফল ভালো হবে। আমি সবার দোয়া, ভালোবাসা ও সহযোগিতা পেলে উচ্চ শিক্ষায় শিক্ষিত হতে চাই। আমার স্বপ্ন একটি ভালো কলেজের ভর্তি হয়ে উচ্চ মাধ্যমিক পরে উচ্চ শিক্ষা গ্রহণ করে প্রতিষ্ঠিত হয়ে পরিবারের অভাব দূর করার।

    বিশিষ্ট সমাজসেবক ও পোর্টল্যান্ড গ্রুপের চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান বলেন, গণমাধ্যমে জাহিদের অধম্য মেধা এবং পড়ালেখার প্রতি প্রবল ইচ্ছা শক্তির কথা জানতে পেরে তাঁর পাশে দাঁড়ানো ইচ্ছা পোষন করি। তার জীবন যেহেতু হুইল চেয়ারেই সীমাবদ্ধ তাই আমি তাকে অত্যাধুনিক একটি হুইল চেয়ার উপহার দিয়েছি। ভবিষ্যতে সে যদি কলেজে ভর্তি হয়ে উচ্চ শিক্ষা গ্রহণ করতে চায় আমি তাঁর পড়ালেখার যাবতীয় খরচ বহন করবো।

    ফেনী ট্রিবিউন/এএএম/এটি


    error: Content is protected !! please contact me 01718066090