আজ

  • বৃহস্পতিবার
  • ২৯শে অক্টোবর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ
  • ১৩ই কার্তিক, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

সোনাগাজীতে ধর্ষণের শিকার মাদ্রাসা ছাত্র

  • সোনাগাজী প্রতিনিধি
  • ফেনীর সোনাগাজীতে ১৫ বছরের এক কিশোর (ছেলে) ধর্ষণের শিকার হয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। সোমবার সন্ধ্যায় উপজেলার সদর ইউনিয়নের সাহাপুর এলাকায় এঘটনা ঘটে। কিশোরটি পৌর শহরের একটি মাদ্রাসার নবম শ্রেণি ছাত্র।

    এ ঘটনায় মঙ্গলবার কিশোরের বাবা বাদী হয়ে জসিম উদ্দিন (৩০) নামে এক ব্যক্তিকে আসামি করে সোনাগাজী মডেল থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন। ঘটনার পর থেকে অভিযুক্ত জসিম উদ্দিন পলাতক রয়েছেন। তিনি উপজেলার সদর ইউনিয়নের সাহাপুর এলাকার আবদুর রাজ্জাকের ছেলে।

    পুলিশ, কিশোরের পরিবার ও স্থানীয়রা জানায়, গত সোমবার সন্ধ্যায় ওই কিশোর ধর্ষণের শিকার হলেও পরিবারের সদস্যরা বিষয়টি জানেন রাতে। তীব্র গরম হওয়ায় ওইদিন বিকেলে জসিম উদ্দিন খালের পাড়ে গাছের ছায়ায় বসে আড্ডা দেওয়া ও খাল দেখানোর কথা বলে কিশোরটিকে তাঁর নানার বাড়ি থেকে ডেকে সাহাপুর এলাকায় মোস্তাক খালের পাড়ে নিয়ে যায়। দীর্ঘক্ষণ দুজন খাল পাড়ে বসে আড্ডা দিচ্ছিল। সন্ধ্যা গনিয়ে আসায় কিশোরটি বাড়িতে যাওয়ার কথা বললে জসিম তাঁকে ভয়ভীতি দেখিয়ে জোরপূর্ব পাশের একটি জঙ্গলে নিয়ে ধর্ষণ করেন।

    পরে ঘটনাটি কাউকে না বলতে তাঁকে মেরে ফেলার হুমকি দেয় জসিম উদ্দিন। সন্ধ্যার কিছুক্ষণ পর কিশোরটি দৌঁড়ে বাড়িতে এসে হঠাৎ অসুস্থ্য হয়ে পড়লে তাঁকে স্থানীয়ভাবে চিকিৎসা দেওয়া হয়। পরে কিশোর বিষয়টি তাঁর পরিবারকে জানায়। এরপর ওই কিশোরের অভিভাবকরা বিষয়টি স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান ও সমাজপতিদেরকে জানান। তাঁরা কিশোর পরিবারকে আইনী ব্যবস্থা গ্রহণের পরামর্শ দেন।

    কিশোরের বাবা জানায়, এ ঘটনায় অভিযুক্ত জসিম উদ্দিনের গ্রেপ্তারপূর্বক দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি করে বলেন, তিনি জসিম উদ্দিনের বিরুদ্ধে থানায় মামলা করেছেন।

    সোনাগাজী মডেল থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) মো.হাবিবুর রহমান চৌধুরী বলেন, কিশোরটিকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে। মঙ্গলবার দুপুরে ফেনীর ২৫০ শয্যা জেনারেল হাসপাতালে কিশোরটির শারীরিক পরীক্ষা করানো হয়েছে। পরে কিশোরটি ফেনীর সিনিয়র জুড়িশিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতে ঘটনার বর্ণনা দিয়েছে।

    সোনাগাজী মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ সাজেদুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, এঘটনায় থানায় মামলার হয়েছে। ঘটনার পর থেকে অভিযুক্ত জসিম উদ্দিন পলাতক রয়েছে। তাঁকে গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

    ফেনী ট্রিবিউন/এএএম/এটি


    error: Content is protected !! please contact me 01718066090