আজ

  • সোমবার
  • ২২শে জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
  • ৭ই শ্রাবণ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

আফগানিস্তানকে চেপে ধরেছে টাইগাররা

  • ক্রীড়া প্রতিবেদক
  • দীর্ঘ ১০ মাস পর চট্টগ্রামের মাটিতে আবারো টেস্ট খেলতে নেমেছে স্বাগতিক বাংলাদেশ। লাঞ্চের আগেই আফগান ইনিংসের রাশ টেনে ধরার চেষ্টা বাংলাদেশের বোলারদের। তিন উইকেট হারিয়ে চাপে রয়েছে আফগানিস্তান। এর মধ্যে তাইজুল একাই নিয়েছেন দুই উইকেট। বাকি উইকেটটি শিকার করেছেন মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ।
    এ প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত ৩৩ ওভার ৪ বলে তিন উইকেট হারিয়ে আফগানিস্তানের সংগ্রহ ৭৭ রান।

    দুই ওপেনারের মধ্যে ইহসানউল্লাহ জানাতকে ১৯ রানের মাথায় বিদায় করে দিয়েছিলেন সরাসরি বোল্ড করে। এবার ৪৮ রানের মাথায় দ্বিতীয় ব্যাটসম্যান হিসেবে অপর ওপেনার, অভিষিক্ত ইবরাহিম জাদরানকে ফেরালেন তাইজুল। এবার তিনি ক্যাচ দিতে বাধ্য করলেন মাহমুদউল্লাহর হাতে।

    টস জিতে ব্যাট করতে নেমে শুরুটা ভালো করার চেষ্টা করেছিলেন আফগানিস্তানের দুই ওপেনার ইবরাহিম জাদরান এবং ইহসানউল্লাহ জানাত। বাংলাদেশের স্পিন আক্রমণ ঠেকিয়ে সেই ভালো সূচনা করাটা বেশ দুরহ কাজ এবং তাতে মোটেও সফল হতে পারেননি আফগান ওপেনাররা।

    তাইজুল ইসলামকে দিয়েই বোলিংয়ের সূচনাটা করিয়েছিলেন সাকিব আল হাসান। অন্যপ্রান্তে সূচনা করেছিলেন সাকিব নিজে। তবে মাত্র এক ওভারের স্পেল করে সরে দাঁড়ান সাকিব। নিয়ে আসেন মেহেদী হাসান মিরাজকে।

    শুরু থেকেই আফগানদের বেশ চাপে রাখে বাংলাদেশের স্পিনাররা। এক প্রান্তে টানা বোলিং করে যাচ্ছেন তাইজুল। অনপ্রান্তে অদল-বদল করে সাকিব, মিরাজ কিংবা নাঈম হাসানরা বোলিং করে যাচ্ছেন।

    টানা বোলিং করার সুফলটা পেয়েও গেলেন তাইজুল ইসলাম। তার দুর্দান্ত এক ঘূর্ণিতে বিভ্রান্ত হয়ে বোল্ড হয়ে গেলেন আফগানিস্তানের ওপেনার ইহসানউল্লাহ জানাত। ইনিংসের ১৩তম ওভারের দ্বিতীয় বলে সুইং করে সোজা স্ট্যাম্পে গিয়ে আঘাত হানে বলটি। ৯ রান করে বোল্ড হয়ে যান ইহসানউল্লাহ।

    ইনিংসের ২৫তম ওভারের ১ম বলেই দ্বিতীয় উইকেট নেন তাইজুল। ইবরাহিম চেয়েছিলেন বলটাকে বোলারের মাথার ওপর দিয়ে মারবেন। কিন্তু হলো মিস হিট। তাতেই লং অফে দাঁড়িয়ে থাকা মাহমুদউল্লাহর হাতে ক্যাচটা তুলে দিলেন তিনি। ২১ রান করে ফিরে গেলেন আফগানদের অভিষিক্ত এই ওপেনার।

    সম্পাদনা : এএএম/আরএস/এসআই


    error: Content is protected !! please contact me 01718066090